বড় সেঞ্চুরিতে রেকর্ডবুকে তোলপাড় জানেমানের

খুলনার চিত্র ডেস্কঃ
  • প্রকাশিত : শনিবার, ১৭ জুলাই, ২০২১

শুক্রবার আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে ৩৪৬ রানের বড় সংগ্রহ দাঁড় করিয়ে ৭০ রানে জিতেছে দক্ষিণ আফ্রিকা। দুই ওপেনার জানেমান মালান ও কুইন্টন ডি কক তুলে নিয়েছেন সেঞ্চুরি। তাদের উদ্বোধনী জুটিতে এসেছে ২২৫ রান। মালান খেলেছেন অপরাজিত ১৭৭ রানের ইনিংস। ডি কক আউট হয়েছেন ১২০ রান করে।

ইনিংসের শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত খেলে ১৬৯ বলে ১৬ চার ও ৬ ছয়ের মারে ১৭৭ রান করেছেন জানেমান। আর ডি ককের ১২০ রান করতে লেগেছে ৯১ বল। যেখানে ছিল ১১ চার ও ৫ ছয়ের মার। এ দুজনের ব্যাটে ওলটপালট হয়েছে রেকর্ডবুকের পাতা। নতুন কীর্তিতে নাম তুলেছেন জানেমান।

ম্যাচটিতে দুই ওপেনার মিলে করছেন ২৯৭ রান। দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে কোনো নির্দিষ্ট ম্যাচে দুই ওপেনারের করা এটিই সর্বোচ্চ রানের রেকর্ড। তারা ভেঙেছেন হাশিম আমলা ও রাইলি রুশোর ২০১৫ সালের ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে করা ২৮১ রানের রেকর্ড। এছাড়া উদ্বোধনী জুটিতে ২২৫ রান দক্ষিণ আফ্রিকার পক্ষে পঞ্চম সর্বোচ্চ।

ওয়ানডে ক্যারিয়ারে এখনও পর্যন্ত ৬ ইনিংসে দুই ফিফটি ও দুই সেঞ্চুরিতে ৪৮৩ রান করেছেন জানেমান মালান। ওয়ানডেতে প্রথম ৬ ইনিংসে এটিই সর্বোচ্চ রানের রেকর্ড। ওয়ানডে ক্রিকেটে ক্যারিয়ারের প্রথম ৬ ইনিংসে চারশর বেশি রান করা অন্য ক্রিকেটার হলেন ইনজামাম উল হক (৪০৬)।

ক্যারিয়ার সর্বোচ্চ ১৭৭ রানের ইনিংস খেলার পথে ১৬৯ বল খেলেছেন জানেমান। দক্ষিণ আফ্রিকার পক্ষে এক ওয়ানডেতে সর্বোচ্চ বল খেলার রেকর্ড এটি। প্রায় ১৫ বছর আগে ভারতের বিপক্ষে ১৬০ বল খেলেছিলেন জ্যাক ক্যালিস। সেই রেকর্ড ভাঙলেন জানেমান।

সবমিলিয়ে ৫০ ওভারের ওয়ানডে ক্রিকেটে জানেমানের ১৬৯ বলের চেয়ে বেশি খেলার নজির রয়েছে মাত্র দুজন ক্রিকেটারের। ২০১৪ সালের শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ২৬৪ রান করার পথে ১৭৩ বল খেলেছিলেন রোহিত শর্মা। ২০০৭ সালে স্কটল্যান্ডের বিপক্ষে ১৩৭ রান করতে ১৭২ বল খেলেছিলেন কানাডার আশিষ বাগাই।

সব ইতিবাচক রেকর্ডের ভিড়ে নেতিবাচক কীর্তিও গড়েছেন জানেমান। ওয়ানডে ক্রিকেটে ১৭০-র বেশি রানের ব্যক্তিগত ইনিংস রয়েছে মোট ৫২টি। এর মধ্যে দ্বিতীয় সর্বনিম্ন স্ট্রাইকরেট জানেমানের (১০৪.৭৫)। এ তালিকায় সবার ওপরে গ্লেন টার্নার। তিনি ১৯৭৫ সালে ২০১ বলে করেছিলেন ১৭১* রান, স্ট্রাইকরেট ছিল ৮৫.০৭ মাত্র।

ক্যারিয়ারের ১৬তম সেঞ্চুরিতে ১২০ রান করার পথে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে তিন ফরম্যাট মিলে ১০ হাজার রানের মাইলফলক ছুঁয়েছেন ডি কক। তিন ফরম্যাট মিলে ১০ হাজারের বেশি রান করা সপ্তম উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান তিনি। তবে তার আগের কেউই ৩০ বছর হওয়ার আগে এ কীর্তি গড়তে পারেননি।

দক্ষিণ আফ্রিকার করা ৩৪৬ রানের জবাবে আয়ারল্যান্ডের ইনিংস থেমেছে ২৭৬ রানে। যেখানে বড় অবদান ৮ নম্বরে নেমে ১০০ রানের অপরাজিত ইনিংস খেলা সিমি সিংয়ের। ওয়ানডে ক্রিকেটে ৮ বা তার নিচে নেমে সেঞ্চুরি করা প্রথম ব্যাটসম্যান সিমি সিং। এতদিন ধরে ৮ বার তার নিচে নেমে সর্বোচ্চ ইনিংস ছিল স্যাম কুরান ও ক্রিস ওকসের করা ৯৫ রান।

সংশ্লিষ্ঠ আরও খবর