আজ || বুধবার, ১৯ Jun ২০২৪
শিরোনাম :
  ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূতের আহবানে রাজা তৃতীয় চার্লসের জন্মদিন উদযাপন করলেন টমি মিয়া       খুলনা সার্কিট হাউজ মাঠে ইদজামাত আয়োজনের প্রস্তুতি পরিদর্শনে সিটি মেয়র       খুলনায় ঈদের প্রধান জামাত সার্কিট হাউজ মাঠে সকাল ৮টায়       পুত্রবধূর সঙ্গে ঝগড়া করে পুকুরে পড়ে শাশুড়ির মৃত্যু       নিউজিল্যান্ডকে বিপদে ফেলে সুপার এইটে ওয়েস্ট ইন্ডিজ       নগরীতে ইজিবাইক চালক রায়হান হত্যাকান্ডের মূল রহস্য উন্মোচন : দুই ঘাতক গ্রেফতার       নাড়ির টানে ঘরে ফিরছে মানুষ       যশোরে আইনজীবীর বিরুদ্ধে আওয়ামী লীগ নেত্রীর শ্লীলতাহানির মামলা       স্বাভাবিক জীবনে আসা বনদস্যুদের মাঝে র‌্যাবের ঈদ সামগ্রী বিতরণ       ঘুমন্ত মায়ের কোল থেকে শিশু চুরির অভিযোগ    
 


দীর্ঘদিনের স্বপ্ন কপিলমুনি-কানাইদিয়া খেয়া ঘাটে ব্রীজ নির্মাণের উদ্যোগ

খুলনার পাইকগাছা উপজেলার কপিলমুনি বাজারের পাশে কপোতাক্ষ নদের উপর কপিলমুনি-কানাইদিয়া খেয়া ঘাটে বেইলী ব্রীজ নির্মাণের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

এলাকাবাসী জানান, গত ২৩/০২/২০২০ ইং তারিখ স্পেন সরকারের অনুদানে বেইলী ব্রীজের জন্য কপিলমুনি খেয়া ঘাটে ঢাকা থেকে একটি পরিদর্শন টিম সরেজমিনে আসেন এবং জনগনের দূর্দশা নিরসনে ব্রিজটি নির্মানের সিদ্ধান্ত নেন। খুব শীঘ্রই কপিলমুনি-কানাইদিয়া খেয়া ঘাটে বেইলী ব্রীজ নির্মাণকাজ শুরু হবে। এ সময় ১১নং জালালপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান এম. মফিদুল হক লিটু উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, পাইকগাছা উপজেলার কপিলমুনি থেকে সাতক্ষীরা সদর হয়ে সরাসরি কোলকাতা যাওয়ার সড়ক নির্মাণের স্বপ্ন দেখেন প্রায় শত বছর আগে আধুনিক বিনোদগঞ্জ প্রতিষ্ঠাতা প্রয়াত রায় সাহেব বিনোদ বিহারী সাধু। সে মতো টাকাও সংগ্রহ করে কলকাতা ব্যাংকে জমাও রাখেন। কিন্তু তৎকালীন অর্বাচিন কিছু লোকের বিরোধিতার কারণে সে সময় সেতু নির্মাণ বাস্তবায়ন সম্ভব হয়নি। স্বাধীনতার পরবর্তী সময় এলাকাবাসীর দীর্ঘ দিনের আন্দোলন সংগ্রামের ফলে কপোতাক্ষ নদের ওপর সেতু নির্মাণের পরিকল্পনা করে স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর (এলজিইডি)। পরিকল্পনা অনুযায়ী ২০০০ সালে সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করে সেতু নির্মাণকাজ শুরু করলে অজ্ঞাত কারনে কিছুদিন কাজ চলার পর বন্ধ হয়ে যায়। ফলে জনগনের দূর্ভোগ দূর্দশা থেকেই যায়। ভাঙ্গাচোরা বাশেঁর সাঁকো দিয়ে কাঁদা মাটি মেখে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে আপামর জনসাধারণ, স্কুল-কলেজের ছাত্র-ছাত্রীরা দিন রাত্রী চলাচল করে আসছিল।


Top